× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ৯ মে ২০২১, রবিবার, ২৬ রমজান ১৪৪২ হিঃ

নারায়ণগঞ্জের মামলায় মামুনুলের সংশ্লিষ্টতা মিলেছে- সিআইডি

দেশ বিদেশ

স্টাফ রিপোর্টার
২১ এপ্রিল ২০২১, বুধবার

নারায়ণগঞ্জের একটি মামলার প্রাথমিক তদন্তে হেফাজতের যুগ্ম মহাসচিব মামুনুল হকের সংশ্লিষ্টতা মিলেছে বলে জানিয়েছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)। মামুনুল এখন একটি মামলার রিমান্ডে আছেন। ওই রিমান্ড শেষ হলে আমরা তাকে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আদালতে আবেদন করবো। গতকাল দুপুরে নিজ কার্যালয়ে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন সিআইডি প্রধান ব্যারিস্টার মাহবুবুর রহমান।
সিআইডি প্রধান বলেন, হেফাজতে ইসলাম মার্চ মাসের শেষ থেকে শুরু করে এপ্রিল পর্যন্ত সারা দেশে দাবি-দাওয়া আদায়ের নামে জ্বালাও- পোড়াও করেছে, আগুন দিয়েছে, অবরোধ করেছে, হরতালের ডাক দিয়েছে। যা প্রচলিত আইনানুযায়ী অন্যায়। ইতিমধ্যে আমরা ২৩টি মামলার তদন্তভার পেয়েছি। আমরা প্রচলিত আইনানুযায়ী তা তদন্ত করবো।
আমাদের ফরেনসিক, ডিএনএ, অভিজ্ঞ তদন্ত কর্মকর্তা রয়েছেন, সাইবার এক্সপার্ট রয়েছেন।  দেশের বিভিন্ন স্থানের মামলায় মামুনুল হকের কোনো সংশ্লিষ্টতা পাওয়া গেছে কিনা, গেলে তাকে রিমান্ডে আনা হবে কিনা জানতে চাইলে মাহবুবুর রহমান বলেন, আমরা প্রাথমিকভাবে তার সংশ্লিষ্টতা পেয়েছি। তিনি একটি মামলায় রিমান্ডে আছেন। সেটি শেষ হলে আমরা তাকে রিমান্ডে আনবো।
কোন মামলায় তার সংশ্লিষ্টতা পেয়েছে সিআইডি তা জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমরা প্রাথমিকভাবে নারায়ণগঞ্জে দায়ের করা মামলায় তার ইনভলভমেন্ট পাওয়া গেছে। আমরা সব মামলা স্টাডি করছি। যদি অন্য কোনো মামলাতেও তার ইনসাইট ইনভলভমেন্ট পাই তাহলে আইনানুগ পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে। আমাদের লোক একাধিক কাজ করছে।
বাবুনগরীসহ হেফাজতের অন্য ঊর্ধ্বতন নেতাদের সংশ্লিষ্টতা পেলে তাদের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নেয়া হবে কিনা জানতে চাইলে মাহবুবুর রহমান বলেন, আমরা এসব মামলায় প্রাথমিক তদন্তে তিন ধরনের লোকের সংশ্লিষ্টতা পেয়েছি। যারা উপস্থিত থেকেছে, অনুপস্থিত থাকলেও ইন্ধন দিয়েছে, দুষ্কর্মে যারা সহযোগিতা করেছে। বাবুনগরীসহ অন্য কারো সংশ্লিষ্টতার বিষয়টি তদন্তের স্বার্থে বলছি না। তবে যদি কারো ইনভলভমেন্ট পাই তবে ব্যবস্থা নেয়া হবে। আইনের চোখে সবাই সমান। আমরা দ্রুত মামলাগুলো নিষ্পত্তি করে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করবো।
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার মামলায় যদি শাসক দলের, বা কোনো জনপ্রতিনিধির সংশ্লিষ্টতা পাওয়া যায় তাহলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে কিনা জানতে চাইলে সিআইডি প্রধান বলেন, আমরা আইন অনুযায়ী কাজ করি। তদন্তে যারই সংশ্লিষ্টতা পাওয়া যাবে আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে। কারণ আইনের চোখে সবাই সমান।
হেফাজতের বিরুদ্ধে দায়ের করা ২৩টি মামলার তদন্তভার পেয়েছে সিআইডি। ২৩টি মামলার মধ্যে রয়েছে নারায়ণগঞ্জ ২টি, ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ১৫টি, কিশোরগঞ্জে ২টি, চট্টগ্রামে ২টি মুন্সীগঞ্জে ২টি। হত্যা, বিস্ফোরক, নাশকতাসহ নানা অভিযোগে এসব মামলা দায়ের করা হয়েছে। নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে গত ২৯শে মার্চ সন্ত্রাসবিরোধী আইনে মামলা দু’টি করা হয়েছিল।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর