× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজানস্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী
ঢাকা, ২০ জুন ২০২১, রবিবার, ৮ জিলক্বদ ১৪৪২ হিঃ

সরকারি সিদ্ধান্তের কোন যুক্তি নেই: ফখরুল

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার
(১ মাস আগে) মে ৯, ২০২১, রবিবার, ৯:০৬ অপরাহ্ন

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার বিদেশ যাওয়ার বিষয়ে সরকার যে সিদ্ধান্ত দিয়েছে এর কোন যুক্তি নেই বলে মনে করছেন দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। রোববার রাতে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ প্রতিক্রিয়া জানান। তিনি বলেন, আমি কিছুক্ষণ আগে বেগম জিয়ার সঙ্গে দেখা করেছি। ডাক্তারদের সঙ্গে কথা বলেছি। উনি এখন অক্সিজেন ছাড়াই স্বাভাবিক শ্বাস প্রশ্বাস নিতে পারছেন। আল্লাহর অশেষ রহমতে ওনার শারীরিক অবস্থার উন্নতি হচ্ছে। সরকারের সিদ্ধান্তে আমরা খুবই হতাশ এবং ক্ষুব্ধ। একটা কথা সত্য যে, বেগম খালেদা জিয়ার নামে মিথ্যা মামলা দেয়া হয়েছে মূলত তাকে রাজনীতি থেকে দূরে সরানোর জন্য।
তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে কারণ বেগম জিয়া হচ্ছেন বাংলাদেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় নেতা। তিনি এই ফ্যাসিস্ট সরকারের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়িয়েছেন তখনই তার নামে মিথ্যা মামলা দেয়া হয়েছে। যেটা গত জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে করা হয়েছে।

তিনি বলেন, খালেদা জিয়ার সুচিকিৎসার জন্য সরকারের কাছে আমরা দু' দুবার গিয়েছি। কিন্তু দুর্ভাগ্যজনকভাবে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করার পরে সরকার সেটা বিবেচনায় নেয়নি। করোনা আক্রান্ত হওয়ার পর তিনি যে হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন সেখানকার ডাক্তাররাই বলেছেন, তাদের চিকিৎসাটা যথেষ্ট নয়। আর করোনা পরবর্তী ম্যাডামের যে জটিলতা দেখা দিয়েছে সেটা সুবিধার নয়। সরকার যে সিদ্ধান্ত নিয়েছে আমরা মনে করি এ সিদ্ধান্তের কোনো যুক্তি থাকতে পারে না। তারা যেটা বলেছে সেটা নজিরবিহীন। শুধু মানবিক কারণে নয়, রাজনৈতিক কারণে হলেও তাকে উন্নত চিকিৎসার সুযোগ দেয়া উচিত।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
কাজি
১০ মে ২০২১, সোমবার, ৩:২৪

বিদেশে চিকিত্সা নিয়ে রাজনৈতিক নেতারা অহংকার দেখানো ও দেশের জনগণকে উপহাস করা ছাড়া কিছু নয়। রাজনৈতিক নেতারা তো জনপ্রতিনিধি ?

কাজী
১০ মে ২০২১, সোমবার, ৩:১১

দেশের হাসপাতাল গুলি আন্তর্জাতিক মানের পর্যায়ে না নেওয়ার খেসারত দিতে হবে সব রাজনৈতিক দলের নেতাদের। করোনা রোগী বিশ্বের কোন দেশ গ্রহণ করতে বাধ্য নয়। যারা ক্ষমতায় ছিলেন করেন নি তারা দুর্ভাগ্যবান। এখন যারা ক্ষমতায় আছেন, যারা স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের দায়িত্বে সবার ভাবা উচিত দেশের স্বাস্থ্য ব্যবস্থা আন্তর্জাতিক মানে উন্নীত করার। বিপদে আপদে নিজের দেশ ভরসাস্থল।

অন্যান্য খবর